ভারত-পাকিস্তানকে জরুরি সংলাপে বসতে বলছে যুক্তরাষ্ট্র

13

পাকিস্তান ভারতের রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কার এবং দেশটির সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক সীমিত করার কয়েক ঘণ্টা পর উভয় দেশকে জরুরিভিত্তিতে সংলাপে বসার আহ্বান জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে এই আহ্বান জানানো হয় বলে ভারতের সংবাদ সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়ার বরাত দিয়ে জানিয়েছে দেশটির শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম নিউজ এইটিন।ট্রাম্প প্রশাসনের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা নাম না প্রকাশের শর্তে এক প্রশ্নের জবাব বলেন, সম্ভাব্য সামরিক উত্তেজনা কমাতে সব পক্ষকে জরুরিভিত্তিতে সংলাপে বসতে হবে।

তিনি বলেন, ভারত ও পাকিস্তানের সম্পর্কের উন্নতি হলে উভয় দেশকে স্বাগত জানাবে যুক্তরাষ্ট্র। এছাড়া আমরা ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে একটি সরাসরি সংলাপের পরিবেশ সৃষ্টি করবো। এই কর্মকর্তা বলেন, অঞ্চলটিতে সহিংসতা ও সংঘাতের ইতিহাস এড়িয়ে সব পক্ষকে শান্ত থাকার আহ্বান জানাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র।

তিনি আরও বলেন, জম্মু ও কাশ্মীরকে দেয়া বিশেষ সাংবিধানিক মর্যাদা বাতিল করার বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনা করেনি ভারত, এমনকি কিছুই জানায়নি। ভারত ‘একক ও অবৈধভাবে’ অধিকৃত কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের প্রেক্ষিতে বুধবার পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে দেশটির ন্যাশনাল সিকিউরিটি কমিটি (এনএসসি) পাঁচটি সিদ্ধান্ত নেয়।

সিদ্ধান্তগুলো হলো- ভারতের সঙ্গে সব দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য স্থগিত করা, দেশটির সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক সীমিত করা; পাকিস্তান-ভারতের দ্বিপক্ষীয় কর্মসূচিগুলো পর্যালোচনা করা; বিষয়টি জাতিসংঘে নিয়ে যাওয়া এবং আগামী ১৪ আগস্ট পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবসে কাশ্মীরিদের প্রতি সংহতি জানানো এবং ১৫ আগস্ট ভারতের স্বাধীনতা দিবসকে কালো দিবস হিসেবে পালন করা।