করোনা ভাইরাস আতঙ্কে রীতিমত থমকে যাচ্ছে বিশ্ব। চীন, ইতালি, ইরানসহ বিশ্বের প্রায় প্রতিটি দেশেই ছড়িয়ে পড়ছে প্রাণঘাতী মহামারী। এই তিন দেশে এখন পর্যন্ত মৃত্যুবরণ করেছেন ছয় হাজারের বেশি মানুষ। সব মিলিয়ে মৃতের সংখ্যা সাড়ে সাত হাজারের বেশি। এবার পৃথিবীর এক নম্বর রাইড শেয়ারিং সেবা উবারের ব্যবসায় লাগলো করোনা ভাইরাসের ধাক্কা।

করোনা ভাইরাস সাধারণত আক্রান্ত ব্যক্তির স্পর্শ থেকে সংক্রমিত হয়। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা তাই সামাজিক জমায়েত বন্ধ করতে, সম্ভব না হলে সীমিত করতে নির্দেশনা দিয়েছে। উবারও তাই আপাতত ‘উবার পুল’ সেবাটি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

‘উবার পুল’ হলো একই সাথে ভিন্ন ভিন্ন যাত্রীকে বহন করা, যারা প্রত্যেকে অন্য একজন যাত্রীর সাথে যাওয়ার জন্য গাড়ি ভাড়া করতে পারেন। এই সেবা বাংলাদেশেও চালু আছে। যদিও ঢাকায় বা বাংলাদেশের অন্যান্য শহরে ‘উবার পুল’ খুব বেশি জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারেনি।

উবারের জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট অ্যান্ড্রু ম্যাকডোনাল্ড এ বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, “আমরা লোকজনকে অপ্রয়োজনীয় ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করার চেষ্টা করছি। এই উদ্দেশ্য সফল করতে আমরা আমাদের স্থানীয় কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়েছি।

এর পাশাপাশি উবার তাদের চালকদেরকেও অপ্রয়োজনীয় ভ্রমণ থেকে বিরত থাকার নির্দেশনা দিয়েছে। এ ছাড়া ‘উবার ইট’ নামের খাবার ডেলিভারি দেওয়ার সেবায় ফি কমিয়েছে উবার। যাতে ভাইরাসের কারণে ব্যবসায় ক্ষতির মুখে পড়া রেস্টুরেন্টগুলো কিছুটা হলেও ক্ষতি পুষিয়ে নিতে পারে।

গত সপ্তাহে উবার জানিয়েছিলো যে তাদের কোনো চালক যদি ভাইরাস আক্রান্ত হন বা আক্রান্ত কারো কাছাকাছি যান তাহলে তাদের গাড়ি চালানোর অনুমতি তুলে নেওয়া হবে।

 

Leave a Reply